শনিবার, ৩১ জুলাই ২০২১, ১০:৪০ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :

আখাউড়ায় তারাগন জমদ্দার বাড়ির পক্ষ থেকে ৫’শ ২০ টি পরিবারে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ

  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ১৪ মে, ২০২০, ৩.৫১ পিএম
  • ১২২ বার পঠিত

ইসমাঈল হোসেন (ব্রাহ্মণবাড়িয়া) : ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়া পৌরশহরের তারাগন গ্রামে আব্দুল মোনেম লিমিটেড এর নিজস্ব অর্থায়নে তারাগন জমদ্দার বাড়ির পক্ষ থেকে ৫শত ২০ টি পরিবারের মাঝে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করা হয়েছে।বৃহষ্পতিবার (১৪মে) দুপুর ১২ টার সময় তারাগন মধ্যপাড়ায় অবস্থিত আব্দুল মোনেম এর শ্বশুরের প্রতিষ্ঠিত শহীদ ইদ্রিছিয়া আফিয়া খাতুন হাফিজিয়া মাদরাসা মাঠ প্রাঙ্গণে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে এ খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করা হয়েছে।করোনায় অসহায় হয়ে পড়া বেকার, দিনমজুর,নিন্মবিত্ত ও মধ্যবিত্তের মধ্যে উপহার হিসেবে ৯ কেজি চাল,২লিটার তেল,১ কেজি ডাল, ২ কেজি পেঁয়াজ, ১ কেজি লবণ ও ১টি সাবান প্রদান করা হয়েছে।

খাদ্যসামগ্রী বিতরণের বিষয়ে উপজেলা পুলিশ কমিউনিটিং কমিটির সভাপতি ও উপজেলা প্রেসক্লাবের উপদেষ্টা মোঃকবির জানান, আব্দুল মোনেম লিমিটেড এর নিজস্ব অর্থায়নে তারাগন জমদ্দার বাড়ির পক্ষ থেকে ৫শত ২০ পরিবারে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করেছি। অসহায় মানুষদের সহযোগিতা করার জন্য সমাজের বিত্তশালীদের প্রতি উদাত্ত আহ্বান জানান তিনি। এ সময় আগত অতিথিবৃন্দরা করোনাভাইরাস থেকে রক্ষা পাওয়ার জন্য জনসচেতনতামূলক বক্তব্য প্রদান করেন।তাছাড়া করোনাভাইরাস এ আতংকিত না হয়ে সচেতন থাকার পাশাপাশি সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা,মুখে মাস্ক পড়া, ঘনঘন হাত দ্রুত করা ইত্যাদি দিক নির্দেশনামূলক পরামর্শ প্রদান করেন।

এ সময় অতিথিদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জনাব তাহমিনা আক্তার রেইনা,আখাউড়া থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি)রসুল আহমেদ নিজামী,আখাউড়া পৌরমেয়র ও উপজেলা যুবলীগের আহ্বায়ক তাকজিল খলিফা কাজল, উপজেলা পুলিশ কমিউনিটিং কমিটির সভাপতি ও উপজেলা প্রেসক্লাবের উপদেষ্টা মোঃকবির,বাংলাদেশ মানবাধিকার কমিশন আখাউড়া শাখার সাধারন সম্পাদক জুয়েল রানা, রাছেল আহমেদ, মামুনুর রশীদ প্রমুখ।

 

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

themesbazar1254120z

এই ওয়েবসাইটের লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।

অত্র পত্রিকায় প্রকাশিত কোন সংবাদ কোন ব্যক্তি বা কোন প্রতিষ্ঠানের মানহানিকর হলে কর্তৃপক্ষ দায়ী নহে। সকল লেখার স্বত্ব ও দায় লেখকের।

Founder Md. Sakil