শুক্রবার, ১৮ জুন ২০২১, ০৬:০৪ পূর্বাহ্ন

কুষ্টিয়ায় ১৪ নং ওয়ার্ডে সরকারি খাস জমি দখলে বাধা দেয়ায় সংঘর্ষ

  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ২৮ মে, ২০২০, ৫.৪৬ পিএম
  • ৩৭ বার পঠিত

কুষ্টিয়া সংবাদদাতা :  কুষ্টিয়া শহর ১৪নং ওয়ার্ডে বটতলা গ্রামে সরকারি খাস জমি দখল করে শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন নামে একটি অনিবন্ধিত সংগঠন দীর্ঘদিন সরকারি খাস জমি দখলসহ ব্যক্তিগত সম্পত্তির উপর দখলদারিত্বের চেষ্টায় গতকাল সকালে শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন ও স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতাদের সাথে সংঘর্ষ হয় ঘটনায় স্থানীয় আওয়ামী লীগের কয়েকজন নেতা আহত হয় বলে জানা যায় এ বিষয়ে কুষ্টিয়া সদর থানায় উভয় পক্ষ পৃথক পৃথক দুইটি এজাহার দায়ের করেছে বলে থানা সূত্রে জানা গেছে ১৪ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর ও ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক শাহিন উদ্দিন বলেন বটতলা এলাকায় দীর্ঘদিন যাবৎ সরকারি খাস জমি দখল করে স্থানীয় শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন নামে একটি সংগঠন গড়ে উঠেছে বলে এই সংগঠন বর্তমানে সরকারি জমির বাইরে এলাকার নিরীহ নিরপরাধ ব্যক্তিদের নিজস্ব সম্পদের উপর লোলুপ দৃষ্টি পড়েছে বলে বিভিন্ন সময়ে জানা যাচ্ছে গতকাল এই সংগঠনের নেতা মারফত ইন্তাজ তাদের সহকারীদের নিয়ে শ্রমিক কল্যাণ অফিসের পাশে একজন পুলিশ অফিসারের বাশার সামনে জায়গা দখলের চেষ্টা করে এই ঘটনায় স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতা মাসুম মালিথা ও যুবলীগের সভাপতি তাদের নিষেধ করলে মারফত ইন্তাজ তাদের দলবল নিয়ে হামলা চালায় এ ঘটনায় স্থানীয় আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি মাসুম মালিথা ওয়ার্ড যুবলীগের সভাপতি জিয়াউর রহমান আওয়ামী লীগের কর্মী ইউনুস আলী মারাত্মকভাবে আহত হয় বিভিন্ন সূত্রে জানা যায় জুগিয়া এলাকায় ফরিদ উদ্দিনের নেতৃত্বে মারফত আহাম্মেদ সোহেল রানা সাজু জুগিয়া বটতলা এলাকায় দীর্ঘদিন যাবৎ সরকারি খাস জমি মসজিদের মালিকানাধীন জায়গা সহ ব্যক্তিগত জমি দখল করে তা ভোগ করে আসছে এছাড়াও তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ রয়েছে মারফত তার বাহিনী নিয়ে কুষ্টিয়ার দাদাপুর সড়কসহ বিভিন্ন সড়কে শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন এর নামে গভীর রাত এ চাঁদাবাজি করে থাকে বর্তমানে কুষ্টিয়া সুযোগ্য পুলিশ সুপার এর পদক্ষেপে মহাসড়কে চাঁদাবাজি বন্ধ থাকায় মারফত ও তার লোকজন এলাকায় সাধারণ মানুষ এর উপর বিভিন্ন ধরনের নির্যাতন সহ সরকারি জমি দখল করে দোকানপাটসহ অফিস কার্যালয় করে ভাড়া দিয়ে আসছে এ ব্যাপারে ১৪ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর বরাবর লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে স্থানীয় এলাকার এক ভুক্তভোগী কাউন্সিলর শাহিন উদ্দিন জানান ভুক্তভোগির অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে ওই এলাকায় সুষ্ঠু সমাধানের জন্য আওয়ামী লীগের সহসভাপতি ও যুবলীগের সভাপতি জিয়াকে সরজমিনে পাঠালে তাদেরকে মারফত বাহিনী হামলা চালায় এ ঘটনায় এলাকায় চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে প্রশাসনের দূরত্ব হস্তক্ষেপের কারণে এখনো বড় ধরনের কোনো ঘটনা ঘটেনি তিনি আরো বলেন এই সকল কাজের সাথে মারফত ইন্তাজ সোহেল সাজু স্থানীয় আওয়ামী লীগের সভাপতি ফরিদ উদ্দিন এর নাম ব্যবহার করে এবং তার নেতৃত্বে এই দখলদারিত্ব চালিয়ে আসছে অবিলম্বে জুগিয়া বটতলা এলাকায় শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন নামে ভুয়া ভুঁইফোড় সংগঠন এর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিলে এলাকায় চাঁদাবাজি মাদক ও সরকারি জমি রক্ষা পাবে বলে মনে করি প্রশাসনের দ্রুত হস্তক্ষেপ কামনা করে! তিনি বলেন এলাকার শান্তিশৃঙ্খলা ফিরিয়ে আনতে মারফত সাজু সোহেল কে দ্রুত আইনের আওতায় আনলে এলাকায় শান্তি-শৃঙ্খলা ফিরে আসবে!

 

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

themesbazar1254120z

এই ওয়েবসাইটের লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।

অত্র পত্রিকায় প্রকাশিত কোন সংবাদ কোন ব্যক্তি বা কোন প্রতিষ্ঠানের মানহানিকর হলে কর্তৃপক্ষ দায়ী নহে। সকল লেখার স্বত্ব ও দায় লেখকের।

Founder Md. Sakil