শুক্রবার, ১৮ জুন ২০২১, ০৬:১৭ পূর্বাহ্ন

ভৈরবে বীর মুক্তিযোদ্ধা আনোয়ার মোহাম্মদ আলী রমিজ কে রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাফন

  • আপডেট টাইম : বুধবার, ২০ মে, ২০২০, ৬.৫০ পিএম
  • ২৩৩ বার পঠিত

মোঃ মিজানুর রহমান পাটোয়ারী, কিশোরগঞ্জ জেলা প্রতিনিধিঃ-

কিশোরগঞ্জ ভৈরব পৌর এলাকার ভৈরবপুর উত্তর পাড়ার মরহুম রমজান আলী মিয়ার নাতী মরহুম মতিউর রহমান ( চাঁন মিয়ার ) কনিষ্ঠ পুত্র বীর মুক্তিযোদ্ধা আনোয়ার মোহাম্মদ আলী রমিজ কে রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাফন করা হয়েছে । করোনা পরিস্থিতির কারণে ১৯ মে দুপুরে যোহর নামাজের পর স্থানীয় ফাতেমা রমজান সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় প্রাঙ্গনে স্বল্প জমায়াতের মাধ্যমে জানাজা অনুষ্ঠিত হয় । জানাজার পূর্বে উপজেলা প্রশাসন ও মুক্তিযোদ্ধা সংসদের পক্ষ থেকে মরহুমের কফিনে ফুলের তোড়া দিয়ে শ্রদ্ধা জানান উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট লুবনা ফারজানা, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক ডেপুটি কমান্ডার ফরহাদ আহমেদসহ অন্যান্য বীর মুক্তিযোদ্ধাগণ ।

এ সময় অন্যান্যদের মাঝে উপস্থিত ছিলেন, ভৈরব উপজেলা বিএনপি সাধারণ সম্পাদক মোঃ আরিফুল ইসলাম, মরহুমের ভগ্নিপতি কর্ণেল (অব.) মোঃ মজিবুর রহমান, ভৈরব উপজেলা আওয়ামী লীগ এর যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এনামুল হক জাহাঙ্গীর , ভৈরব পৌর ৭ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মোহাম্মদ আলী সোহাগ, লঞ্চ মালিক সমিতির সভাপতি মোস্তাফিজুর রহমান হেলিম, ভৈরব পৌর ৭ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ সাবেক সভাপতি মোঃ মজিবুর রহমান আবু মিয়া, উপজেলা যুবলীগের সাবেক সভাপতি মোঃ ওমর ফারুক, যুবদল সভাপতি দেলোয়ার হোসেন সুজন, সাংবাদিক মোঃ জাকির হোসেন, আঃ খালেক, শওকত আলী ফাহিম, মৌলানা এনায়েতুল্লাহ ভৈরবী ও মৌলানা আল আমিন, মরহুমের কনিষ্ঠ পুত্র মোনাজাত আলী মাহমুদসহ মরহুমের আত্মীয় স্বজন ও এলাকার বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ। ভৈরব থানার পুলিশের একটি সুসজ্জিত দল এই বীর নায়ক কে গার্ড অব অনার ( রাষ্ট্রীয় সম্মান ) প্রদান করে ।
মরহুম আনোয়ার মোহাম্মদ আলী রমিজ গত ৫ মে আমেরিকার একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ইন্তেকাল করেন । মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৭২ বছর । তিনি স্ত্রী, ৩ পুত্র সন্তান ও ১ বোন রেখে যান । মরহুম বীর মুক্তিযোদ্ধা আনোয়ার মোহাম্মদ আলী রমিজ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতকোত্তর ডিগ্রী অর্জন করেন । কর্মজীবনে তিনি বেশ ক’বছর চা বাগানের ম্যানেজারে দায়িত্ব পালন করেন । মৃত্যুর পূর্ব পর্যন্ত তিনি আমেরিকায় প্রবাসী জীবন যাপন করেন । মরহুমের নিকটতম আত্মীয় স্বজনরা জানান, মরহুমের মৃত্যুকালে তিনি প্রচুর ধন সম্পদ রেখে গেছেন । সেই অর্থ থেকে মানবকল্যাণে মসজিদ, মাদ্রাসা, এতিমখানা, বৃদ্ধাশ্রম, স্কুল প্রতিষ্ঠা করা হবে । তার মৃত্যুতে ভৈরবের বিভিন্ন শ্রেণি পেশার মানুষ গভীরভাবে শোকাহত ।
উল্লেখ্য যে, তার পরিবারবর্গের পক্ষ থেকে ভৈরব বেশ কটি স্কুল, কলেজ, মাদ্রাসা, মসজিদ, এতিমখানা প্রতিষ্ঠা করেন ।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

themesbazar1254120z

এই ওয়েবসাইটের লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।

অত্র পত্রিকায় প্রকাশিত কোন সংবাদ কোন ব্যক্তি বা কোন প্রতিষ্ঠানের মানহানিকর হলে কর্তৃপক্ষ দায়ী নহে। সকল লেখার স্বত্ব ও দায় লেখকের।

Founder Md. Sakil