শনিবার, ১৬ অক্টোবর ২০২১, ০৩:১৯ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
ভৈরবে তেয়ারীরচরে এডভোকেট আবুল বাসারের নির্বাচনী গণসংযোগ ও মতবিনিময় সভা ভৈরবের সাদেকপুর ইউনিয়নবাসীর সাথে সরকার সাফায়েত উল্লাহ’র নির্বাচনী মতবিনিময় সভা ভৈরবে ৩ প্রতিষ্টান সিলগালা ৬০ লাখ টাকার জাল ধ্বংস বড়লেখা ফাউন্ডেশন ইউ কে উদ্যোগে আলোচনা সভা ও নৈশভোজ অনুষ্ঠান শয়তানের চ্যালেঞ্জ ও আল্লাহর ক্ষমার নমুনা ভৈরবে র‌্যাবের হাতে ভারতীয় ৫ লক্ষাধিক ট্যাবলেট ও ৯৭ পিস ভারতীয় কাতান শাড়ী উদ্ধার ভৈরবে এতিম শিক্ষার্থীদের মাঝে শিক্ষা উপকরণ বিতরন লক্ষ্মীপুরে বড় ভাইয়ের স্ত্রীকে মারধরের অভিযোগ দেবরের বিরুদ্ধে বড়লেখা পল্লী বিদ্যুতের অতিরিক্ত বিল নিয়ে গ্রাহকদের মানববন্ধন বড়লেখা মানবসেবা সংস্থার উদ্যোগে সিলিং ফ্যান বিতরণ

চুরি করা দেখে ফেলায় পাশের বাড়ির যুবকের হাতে প্রাণ গেল আইনজীবীর

  • আপডেট টাইম : শুক্রবার, ৫ জুন, ২০২০, ১০.২২ পিএম
  • ১৩৭ বার পঠিত

 

মোঃ আরিফ শেখ, রংপুরঃ

রংপুরে চুরি করা দেখে ফেলায় আসাদুল হক (৬০) নামে এক সিনিয়র আইনজীবীকে ছুরিকাঘাত ও গলাকেটে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। এঘটনায় রতন মিয়া (২২) নামে এক যুবককে আটক করেছে পুলিশ।

শুক্রবার (৫ জুন) বেলা পৌনে দুইটার দিকে রংপুর নগরীর ৩২ নম্বর ওয়ার্ডের ধর্মদাস বারো আউলিয়া গ্রামে ওই আইনজীবীর বাড়িতে হত্যাকান্ডের এ ঘটনাটি ঘটেছে। নিহত আসাদুল হক রংপুর জজ কোর্টের প্রাক্তন সহকারি পাবলিক প্রসিকিউটর ও সিনিয়র আইনজীবী ছিলেন।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানা গেছে, শুক্রবার দুপুরে জুম্মার নামাজ আদায়ের প্রস্তুতি নিতে অযুর করার সময় রতন মিয়া ও তার সঙ্গীকে বাড়িতে চুরি করতে দেখে ফেলেন আইনজীবী আসাদুল হক। একারণে ওই যুবকরা আইনজীবীকে বাড়িতে একা পেয়ে তার পেটে ছুরিকাঘাত করাসহ গলাকেটে হত্যা করে। পরে বাড়ির দেওয়াল টপকে পালানোর সময় স্থানীয় কয়েকজন মুসল্লি রতনকে হাতেনাতে আটক করে গণধোলাই দিয়ে, পরে পুলিশে খবর দেন।

আটক রতন মিয়া একই গ্রামের মৃত জাফর আলী ড্রাইভারের ছেলে। সে দীর্ঘদিন মাদকসেবন, চুরি-ছিনতাইসহ বিভিন্ন অপরাধের সাথে জড়িত বলে জানান স্থানীয়রা। এরআগে ওই আইনজীবীর বাড়িতে দুই-তিনবার চুরির ঘটনায় গ্রাম্য সালিশ বৈঠকে রতনকে সতর্ক করা হয়েছিল।

নিহতের স্ত্রী সাবেরা রহমান শেফালী বলেন, করোনার কারণে আমি গ্রামের বাড়ি মিঠাপুকুরে ছিলাম। সেখান থেকে খবর পেয়ে এসে দেখি আসাদুলকে শহরের বাড়িতে দুর্বৃত্তরা জবাই করে হত্যা করেছে। এর আগেও রতন মিয়া একাধিকবার চুরি করেছে। কিন্তু গ্রাম্য বিচারে তাকে ছেড়ে দেয়া হয়। এবার তার চুরি করা দেখে ফেলায় সে আমার স্বামীকে খুন করেছে। আমি এই হত্যাকারীর সর্বোচ্চ শাস্তি দাবি করছি।

এদিকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে আটক যুবক হত্যার দায় স্বীকার করেছেন বলে জানিয়েছে রংপুর মেট্রোপলিটন তাজহাট থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ রোকোনুজ্জামান। তিনি জানান, নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। এছাড়া চুরি ও হত্যাকান্ডে জড়িত রতনের অপর সহযোগিকে গ্রেফতারের চেষ্টা অব্যহত রয়েছে।
এদিকে ওই ঘটনার খবর পেয়ে রংপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার (অপরাধ) শহীদুল্লাহ্ কাওছার, রংপুর বার সমিতির সভাপতি ও জজ কোর্টের পাবলিক প্রসিকিউটর আব্দুল মালেক, সাধারণ সম্পাদক আব্দুল হক প্রামানিক ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

এসময় পিপি আব্দুল মালেক এ ঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়ে বলেন, আমরা মর্মাহত এই হত্যাকান্ডের ঘটনায়। আগামী রোববার (৭ জুন) বার সমিতির সভা করে হত্যাকান্ডের প্রতিবাদে কর্মসূচী ঘোষণা করা হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

themesbazar1254120z

এই ওয়েবসাইটের লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।

অত্র পত্রিকায় প্রকাশিত কোন সংবাদ কোন ব্যক্তি বা কোন প্রতিষ্ঠানের মানহানিকর হলে কর্তৃপক্ষ দায়ী নহে। সকল লেখার স্বত্ব ও দায় লেখকের।

Founder Md. Sakil